বম্ব সাইক্লোন

@
0
(0)

দু’দিন পর আজ সকালে হাঁটতে বেরিয়ে ছিলাম। কদিন থেকে আকাশ গভীর নীল। দিনের তাপমাত্রা বেশ কিছুটা বেড়েছে। ঠান্ডা অনেকটা কমেছে। পাখিদের ডাকাডাকি বেড়েছে। বিশেষ করে কোকিলের। কখনো কখনো সপ্তমে পৌঁছে যাচ্ছিল তার কুহু স্বর। আমার ঠিক সামনের বাড়ির আমগাছে দুদিন আগেও তেমন মুকুল ছিলনা। আজ দেখলাম গাছ ভর্তি মুকুল বেরিয়েছে। তবে এবার এখনো সব গাছে মুকুল আসেনি। গত দুবছর সব গাছেই ঝেঁপে মুকুল বেরিয়েছিল কিন্তু আবহাওয়া অনুকূল না থাকায় সব মুকুল টেকেনি। এবার শীত মাঘ মাসের শেষ দিন পর্যন্ত অনেকটা জোরালো ছিল আমাদের এখানে। এখনো সেই ঘোর পুরো কাটেনি। তাইতো বসন্ত একপা এগিয়ে দু’পা পিছিয়ে পড়ছে। তার সমস্ত সম্ভার দিয়ে সাজিয়ে তুলতে পারছে না আমাদের পরিবেশকে। আমাদের চারপাশে শীতের রুক্ষতা এখনো কাটেনি। হাল্কা বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। মনে হয় শীতের রুক্ষতা বৃষ্টি হলে তবেই কাটবে।

Image result for rain in winter

আজ একটা নতুন বিষয়ে বলছি। হয়ত অনেকের জানা আছে। বম্ব সাইক্লোন। গত ১৪ই ফেব্রুয়ারি থেকে আইসল্যান্ড এবং ইউরোপের অন্যান্য দেশে বম্ব সাইক্লোনের তান্ডব চলছে। তুষার ঝড়, প্রবল বৃষ্টিপাত, ১২০ থেকে ১৬০ কিলোমিটার বেগের ঝোড়ো বাতাস, সমুদ্র উপকূলে প্রবল জলোচ্ছ্বাস।

cyclone (2)প্রবল বৃষ্টিপাতের জন্য অনেক জায়গায় বন্যা হয়েছে। বম্ব সাইক্লোন বা ওয়েদার বম্ব প্রধানত উপক্রান্তীয় অঞ্চলের, ৬০ ডিগ্রি উত্তর বা দক্ষিণ অক্ষাংশ বা তার কাছাকাছি, ঝোড়ো আবহাওয়া। বম্ব সাইক্লোন হল ঘুর্ণিঝড় তৈরি প্রক্রিয়া। উপক্রান্তীয় অঞ্চলে কোন নির্দিষ্ট নিম্নচাপ কেন্দ্রে বায়ুর চাপ দিনে ২৪ মিলিবার বা তার বেশি হারে কমতে থাকলে বাতাসের তীব্রতা বাড়তে থাকে। এভাবে খুব কম সময়ে একটি নিম্নচাপ সাইক্লোন বা ঘুর্ণিঝড়ে পরিণত হলে তাকে বলে বম্ব সাইক্লোন । গত কয়েকদিন ধরে ইউরোপের কিছু দেশে যে ঘুর্ণিঝড়ের তান্ডব চলছে তা তৈরি হয়েছে দুটি বম্ব সাইক্লোন একত্রে মিলিত হয়ে। বর্তমান সাইক্লোনের বৈশিষ্ট্য হল তার বিশালতা। ঘুর্ণিঝড়টি কয়েক হাজার কিলোমিটার জুড়ে বিস্তৃত। বেশ কয়েক বছর আগের একটি সাইক্লোনের সাথে এই সাইক্লোনের তুলনা করা যায়। সাইক্লোন স্যান্ডি যা ক্রান্তীয় ঘূর্ণিঝড় থেকে উপক্রান্তীয় ঘুর্ণিঝড়ে পরিবর্তিত হয়েছিল। উত্তর আমেরিকার পূর্ব উপকূল জুড়ে চলেছিল তার তান্ডব।

Image result for bomb cyclone

অজয় নাথ

লেখাটিকে কতগুলি ট্রফি দেবেন ?

Click on a star to rate it!

Average rating 0 / 5. Vote count: 0

No votes so far! Be the first to rate this post.

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •   
  •   
  •  

Leave a Reply

Next Post

অ্যালুমিনিয়াম ফয়েল—আমরা কতটা লাভবান ?

0 (0) ২০০৫ সালে মুক্তি পাওয়া অমিতাভ বচ্চন ও রানী মুখার্জীর ব্ল্যাক সিনেমায় মাস্টার মশাই অমিতাভ অ্যালজাইমার নামক অসুখে আক্রান্ত ছিলেন। এই অসুখে আক্রান্ত মানুষের স্মৃতি শক্তি ধীরে ধীরে লােপ পেতে থাকে। আজকাল প্রায় প্রতিদিনই নতুন নতুন অসুখের নাম আমরা জানতে পারি, যাদের মধ্যে কোনাে কোনাে রােগের কারণ তাে এখনাে […]
error: কপি নয় সৃষ্টি করুন
%d bloggers like this: