এক নীরব বিদায়  

Two of the last white giraffes on Earth were slaughtered by ...

এক নীরব বিদায়  

পৃথিবীর বুক থেকে হারিয়ে গেল আরও এক প্রজাতি,একে একে এই ভাবেই হয়তো সমস্ত জীব ধ্বংস হয়ে যাবে !  শুধু থেকে যাবে ইতিহাসের পাতায় ডাইনোসর কিংবা ডোডো হয়ে l ডারউইনীয় তত্ত্বে হারিয়ে গেলে কোনো কিছুই হয়তো বলার ছিল না কিন্তু সাদা জিরাফ তো চলে গেলো অসচেতনতা  আর লোভের ফলে, বনকর্মীদের আরও বেশি দায়িত্বশীল হওয়া প্রয়োজন l

সাদা জিরাফ, পৃথিবীর অন্যতম বিরল প্রাণী। কেনিয়ার গারিসা প্রদেশে একটি সাদা জিরাফ  পরিবাবের শেষ আবাসস্থল ছিল, পরিবার এখন কেবলমাত্র একটি পুরুষ জিরাফে এসে  থেমেছে ।যেকোনো প্রজাতির স্ত্রী প্রাণীর মৃত্যু মানে প্রজাতির অবলুপ্তি অনিবার্য , ফলে পৃথিবীর বুক থেকে এই প্রজাতিটি যে মুছে গেল, নিঃসন্দেহে  বলা যায়। কারণ বংশবিস্তারের আর কোনো সম্ভবনা নেই।

Kenya's only female white giraffe and her calf killed by poachers ...

সম্প্রতি,এক চোরাশিকারীর হাতে প্রাণ হারাল কেনিয়ার শেষ মহিলা সাদা জিরাফ ও তার শাবকের ।যার ফলে পৃথিবীর অরণ্য বাস্তুতন্ত্রের এক অপূরণীয় ক্ষতি হল l
জিরাফ, হলো  ডাঙ্গার সবচেয়ে লম্বা প্রাণী।নিত্য পরিবর্তনশীল পরিবেশের সঙ্গে মানিয়ে নিতেই তার গলা এত লম্বা। প্রকৃতি নিজের পরিবর্তনের পাশাপাশি, মানুষের কার্যকলাপের ফলে, তার বদল ঘটেছে অনেক বেশি। এই বদলে যাওয়ার সঙ্গে মানিয়ে নিতে পারছে না অনেক প্রাণীই  হারিয়ে যেতে বসেছে তারা । তেমনই হারিয়ে যেতে বসেছে জিরাফ। 2016 সালে অন্যতম বিরল এবং বিপদগ্রস্থ প্রজাতির তালিকায় জায়গা পায় জিরাফ। 2017 থেকে2019 পর্যন্ত প্রায় 40%  এই প্রজাতির সদস্য পৃথিবী থেকে বিদায় নিয়েছে l

সাদা জিরাফ!সাদা অর্থাৎ আলবিনো এক বিশেষ জেনেটিক অবস্থা,যেখানে প্রাণীর ত্বকের কোনো রঙ তৈরী হয় না l ফলে প্রাণীটিকে সাদা দেখায়, মানুষের ক্ষেত্রে যাকে আমরা শ্বেতী বলি l  প্রাণীটি কেনিয়ার সমুদ্রতীরবর্তী অঞ্চল ছাড়া আর কোথাও পাওয়া যেত না,সেখানে সংখ্যা কমেছিল মারাত্মকভাবে । শেষ পর্যন্ত ছিল মাত্র একটি দম্পতি। গত আগস্টে, বিলুপ্তপ্রায় এই দম্পতি জন্ম দিয়েছিলো একটি শিশুর।
কেনিয়ার ইশাকবিনি হিরোলা অভয়ারণ্য ঘিরে বাস বেশ কিছু আদিম উপজাতির। তাঁদের অনেকেই জীবিকা নির্বাহ করেন বন্যপ্রাণী শিকার করে। বিভিন্ন সরকারি ও বেসরকারি উদ্যোগে সচেতনতা গড়ে তোলার কাজটা সফল পুরোপুরি হয়নি।  এখনও বিরল এইসব প্রজাতির গুরুত্ব,তাদের অজানা । আর তারই ফল ভুগতে হল মহিলা সাদা জিরাফ এবং তার কয়েকমাসসের সন্তানকে। সম্প্রতি এক চোরা-শিকারীর হাতে প্রাণ হারাল দুজনেই।পরিবার টি জঙ্গলের মধ্যেই  ঘুরেবেড়াত,বেশ কিছু মাস হলো, মা এবং শিশু জিরাফ টি কে দেখা যায় নি l তারপর তাদের কঙ্কাল উদ্বার হয়,এবং সাদা চামড়া দেখে শনাক্ত করা যায় l অনুমান ঘটনা টি দুই থেকে দেড় মাস আগে ঘটে l

ইতি ঘটল একটি বিরল প্রজাতির। মানুষের আগ্রাসী এবং লোভী চরিত্রের কাছে প্রতিনিয়ত  হার মানতে বাধ্য হচ্ছে বহু প্রজাতি। পৃথিবীর বুকের থেকে ক্রমশ হারিয়ে যাচ্ছে । এইসব প্রজাতিদের বাঁচাতে না পারলে বাঁচবে না মানুষও। কিন্তু তাতে আমরা কতটুকুই বা ভাবছি পরিবেশের কথা? কি বা সচেতন হচ্ছি সভ্যতা-কে সেই প্রশ্নই যেন আবার  করে গেলো এই ঘটনা।

সৌভিক রায়

Leave a Reply

%d bloggers like this: